July 4, 2022, 12:12 am

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র কারামুক্তি দিবসে বগুড়ায় আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

স্টাফ রিপোর্টার : বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র কারামুক্তি দিবস উপলক্ষে বগুড়ায় আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার (১১ জুন) বেলা ১১টায় শহরের টেম্পল রোডস্থ দলীয় কার্যালয়ে জেলা আওয়ামী লীগ এই কর্মসূচির আয়োজন করে। জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু। আরো বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামীলীগ নেতা ডঃ মকবুল হোসেন, টি জামান নিকেতা, আবুল কালাম আজাদ, অ্যাডভোকেট আমানুল্লাহ, প্রদীপ কুমার রায়, একেএম আসাদুর রহমান দুলু, অ্যাডভোকেট জাকির হোসেন নবাব, সুলতান মাহমুদ খান রনি, আব্দুল্লাহ আল-রাজী জুয়েল, নাসরিন রহমান বীর, মুক্তিযোদ্ধা আনিসুজ্জামান মিন্টু, মাশরাফি হিরো, আনোয়ার পারভেজ রুবন, খালেকুজ্জামান রাজা, অধ্যক্ষ আহসানুল হক, সাইফুল ইসলাম বুলবুল, অাবু ওবায়দুল্লাহ হাসান ববি, মাহফুজুল ইসলাম রাজ, হেফাজত আরা মীরা, আলমগীর বাদশা, শুভাশীষ পোদ্দার লিটন, সাজেদুর রহমান শাহীন, আমিনুল ইসলাম ডাবলু, জুলফিকার রহমান শান্ত, আলমগীর হোসেন স্বপন, আব্দুল খালেক, গৌতম কুমার দাস, সাবরিনা সরকার পিংকি, ডালিয়া নাসরিন রিক্তা, নাইমুর রাজ্জাক তিতাস, রাশেকুজ্জামান রাজন প্রমূখ। আলোচনা সভা শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দীর্ঘায়ু ও সুস্থতা কামনা করে বিশেষ দোয়া মোনাজাত করা হয়। এতে জেলা আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন ইউনিটের নেতা কর্মীরা অংশ নেন। প্রসঙ্গত, আজ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস। দীর্ঘ প্রায় ১১ মাস কারাভোগের পর ২০০৮ সালের ১১ জুন সংসদ ভবন চত্বরে স্থাপিত বিশেষ কারাগার থেকে তিনি মুক্তি পান। সেনা সমর্থিত ১/১১ এর তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় ২০০৭ সালের ১৬ জুলাই ভোরে ধানমন্ডির বাসভবন থেকে শেখ হাসিনা গ্রেপ্তার হন। গ্রেপ্তার করে প্রথমে তাকে ঢাকা মেট্রোপলিটন আদালতে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে সংসদ ভবন চত্বরে স্থাপিত বিশেষ কারাগারে নিয়ে আটক রাখা হয়। এসময় কারাগারের অভ্যন্তরে শেখ হাসিনা মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়েন। তখন তার চিকিৎসকরা তাকে বিদেশে চিকিৎসার জন্য পরামর্শ দেন। আওয়ামী লীগসহ অন্যান্য সহযোগী সংগঠনের ক্রমাগত চাপ, আপসহীন মনোভাব ও অনড় দাবির পরিপ্রেক্ষিতে তত্ত্বাবধায়ক সরকার শেখ হাসিনাকে মুক্তি দিতে বাধ্য হয়। মুক্তি পেয়েই চিকিৎসার উদ্দেশ্যে যুক্তরাষ্ট্রে যান শেখ হাসিনা। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায়ই তার অস্থায়ী জামিনের মেয়াদ কয়েক দফা বাড়ানো হয়। ২০০৮ সালের ৬ নভেম্বর দেশে ফিরলে স্থায়ী জামিন দেয়া হয় তাকে। পরে ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের জাতীয় নির্বাচনে ঐতিহাসিক বিজয়ের মাধ্যমে ২০০৯ সালের ৬ জানুয়ারি তার নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগসহ মহাজোট সরকার গঠিত হয়। এরপর ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনেও বিজয়ী হয়ে সরকার গঠন করে আওয়ামী লীগ। শেখ হাসিনাও টানা তৃতীয়বারসহ চতুর্থ বারের মতো দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD