July 7, 2022, 5:15 am

বগুড়ায় তেল পেঁয়াজের পর হঠাৎ আটা ময়দার দাম বৃদ্ধি

স্টাফ রিপোর্টার : বগুড়ায় নিত্যপণ্যের বাজারে অস্থিরতা কমছে না। ঈদের পর থেকে একের পর এক নিত্যপণ্যের দাম বৃদ্ধির দুঃসংবাদে অস্থিরতা বাড়ছে। এবার একদিনের ব্যবধানে আটা ময়দায় দাম কেজিতে বেড়েছে ৫ থেকে ১০ টাকা। শনিবার ভারত গম রপ্তানি বন্ধ করেছে এমন খবরে রবিবার হঠাৎই আটা ময়দার দাম বাড়িয়ে দেয় ব্যবসায়ীরা। পূর্বে কমমূল্যে কেনা থাকলেও রপ্তানী বন্ধের সুযোগ নিচ্ছেন ব্যবসায়ীরা।
গতকাল বগুড়া শহরের বড় বাজার খ্যাত ফতেহআলী ও রাজাবাজার ঘুরে এসব তথ্য জানা গেছে। ঈদের পর থেকেই বগুড়ার বাজারে সয়াবিন তেল, পেঁয়াজ, ডিম, চিনি, গুড়ো দুধের দাম বেড়ে গেছে। এর আগে পুরো রমজান মাস জুড়েই তেল, ডাল, চিনি, বেশন, ছোলা, বেগুন, শসা, মরিচ, লেবু, মাছ, মুরগি, মাংসের দাম বৃদ্ধির প্রবনতা দেখা যায়।

ঈদের দু’দিন পর সারাদেশের ন্যায় বগুড়াতেও সয়াবিন তেলের দাম প্রতি লিটারে ৩৮ থেকে ৪০ টাকা বেড়ে যায়। ঈদের পরদিন বাজার থেকে গায়েব হয়ে যায় বোতল ও প্যাকেটজাত সয়াবিন তেল। ওইসময় বিভিন্ন বাজার ঘুরে কোন ক্রেতাই ১ লিটার তেলও পায়নি। এমনকি বিভিন্ন পাড়া মহল্লার দোকানগুলিতেও মেলেনি সয়াবিন তেল। দাম বৃদ্ধির পর বেরিয়ে আসে তেল। ব্যবসায়ীরা গায়ের মূল্য বাদ দিয়ে নির্ধারিত মূল্যে সয়াবিন তেল বিক্রি শুরু করলে বাধ সাধে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদদপ্তর ও স্থানীয় প্রশাসন। বগুড়ায় প্রতিদিনই চলছে অবৈধভাবে মজুত করা তেল জব্দে অভিযান। এরপর দুঃসংবাদ আসে ভারত পেঁয়াজ রপ্তানী বন্ধ করার খবর। ঈদের আগেও দেশি পেঁয়াজ খুচরা প্রতি কেজি ২০ থেকে ২৫ টাকায় বিক্রি হলেও সেই পেঁয়াজের দাম এক লাফে ২০ টাকা বাড়িয়ে ৪৫ টাকায় বিক্রি শুরু করেন ব্যবসায়ীরা। পেঁয়াজের যথাযথ উৎপাদন হলেও ব্যবসায়ীদের অধিক মুনাফা লাভের প্রবণতা দমানো যাচ্ছে না। তেল পেঁয়াজের পরপরই গতকাল আটা ময়দার দাম বাড়িয়েছেন ব্যবসায়ীরা। বগুড়া রাজাবাজারের ব্যবসায়ী মিটু দাস জানান, খোলা সাদা আটা ৪৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। একদিন আগে এই আটা বিক্রি হয়েছে ৪০ টাকায়। একদিনেই ৫ টাকা বাড়ার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন পাইকারী ব্যবসায়ীরা দাম বাড়িয়ে দিয়েছে। আমরা বাড়তি দামে কিনে দুই এক টাকা লাভে বিক্রি করছি। লাল আটা বিক্রি হচ্ছে ৫৫ টাকা কেজি দরে। যার দাম ছিল ৪৫ টাকা। এদিকে খোলা ও প্যাকেট ময়দার দামও কেজিতে ২ থেকে ৫টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। মিটু দাস জানান, বাজারের যে অবস্থা ক্রেতারা যেভাবে হুমড়ি খেয়ে পড়েছে তাতে দাম আরো বাড়বে বলে আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। সবাই জেনে গেছে কোথাও থেকে গম আসছে না। তাই যে যেভাবে পারছে আটা ময়দা কিনছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD