December 2, 2022, 8:57 pm

দেশে বেড়েছে রফতানি আয়

যমুনা নিউজ বিডিঃ চলতি অর্থবছরের (২০২১-২২) প্রথম ১০ মাসে গত অর্থবছরের একই সময়ের তুলনায় রফতানি আয় বেড়েছে। আর গত এপ্রিলে সার্বিকভাবে দেশে রফতানি আয় বেড়েছে ৫১ দশমিক ১৮ শতাংশ। সোমবার রফতানি উন্নয়ন ব্যুরো (ইপিবি) থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

ইপিবি বলছে, ২০২১-২২ অর্থবছরের প্রথম ১০ মাসে (জুলাই থেকে এপ্রিল) গত অর্থবছরের (২০২০-২০২১) একই সময়ের তুলনায় আয় ৩৫ দশমিক ১৪ শতাংশ বেড়ে ৪৩ দশমিক ৩৪ বিলিয়ন ডলারে দাঁড়িয়েছে।

ইপিবির তথ্য বলছে, চলতি অর্থবছর শেষ হওয়ার ২ মাস আগেই রফতানি লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করেছে বাংলাদেশ। চলতি অর্থবছরের দশম মাস এপ্রিলে বিভিন্ন পণ্য রফতানি করে ৪৭৩ কোটি ৮৭ লাখ (৪.৭৪ বিলিয়ন) ডলার বিদেশি মুদ্রা আয় করেছেন বাংলাদেশের রফতানিকারকরা।

ইপিবির তথ্য বিশ্লেষণে দেখা যায়, জুলাই-এপ্রিল সময়ে তৈরি পোশাক রফতানি থেকে আয় হয়েছে ৩৫ দশমিক ৩৬ বিলিয়ন ডলার, যা গত অর্থবছরের একই সময়ের চেয়ে ৩৬ শতাংশ বেশি। লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে এ খাত থেকে আয় বেড়েছে প্রায় ২২ শতাংশ।

গত বছরের এপ্রিলের চেয়ে ৫১ দশমিক ১৮ শতাংশ বেশি রফতানি আয় দেশে এসেছে। এ মাসে লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে আয় বেশি এসেছে ৪০ দশমিক ৬৬ শতাংশ। অর্থবছরের হিসাবে ১০ মাসে অর্থাৎ জুলাই-এপ্রিল সময়ে ৪৩ দশমিক ৩৪ বিলিয়ন ডলার আয় করেছেন রফতানিকারকরা। এ অঙ্ক গত অর্থবছরের পুরো সময়ের (২০২১ সালের জুলাই থেকে ২০২২ সালের এপ্রিল) চেয়েও ১২ শতাংশ বেশি।

রফতানির এ ধারা অব্যাহত থাকলে অর্থবছর শেষে এবার রফতানি আয় ৫২ বিলিয়ন ডলারের মাইলফলক অতিক্রম করে রফতানি বাণিজ্যে ইতিহাস সৃষ্টি করবে বাংলাদেশ। অর্থবছরের বাকি দুই মাসেও (মে ও জুন) এ ইতিবাচক ধারা অব্যাহত থাকবে বলে আশা করছেন রফতানিকারকরা।

এপ্রিল মাসে রফতানির লক্ষ্যমাত্রা ধরা ছিল ৩৩৬ কোটি ৯০ লাখ ডলার। গত বছরের এপ্রিলে পণ্য রফতানি থেকে ৩১৩ কোটি ৪৪ লাখ ডলার আয় হয়েছিল। ১০ মাসের হিসাবে সার্বিক রফতানি আয় বেড়েছে ৩৫ দশমিক ১৪ শতাংশ। লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে আয় বেশি এসেছে ২০ দশমিক ৫২ শতাংশ।

একক মাসের হিসাবে বাংলাদেশের ইতিহাসে এপ্রিল মাসের এ আয় চতুর্থ সর্বোচ্চ। সবচেয়ে বেশি এসেছিল গত বছরের শেষ মাস ডিসেম্বরে ৪৯০ কোটি ৭৭ লাখ (৪ দশমিক ৯০ বিলিয়ন) ডলার। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ এসেছিল চলতি বছরের প্রথম মাস জানুয়ারিতে ৪৮৫ কোটি ৩ লাখ ৭০ হাজার (৪ দশমিক ৮৫ বিলিয়ন) ডলার। মার্চে এসেছিল ৪৭৬ কোটি ২২ লাখ ডলার। ফেব্রুয়ারিতে এসেছে ৪২৯ কোটি ৪৫ লাখ (৪ দশমিক ২৯ বিলিয়ন) ডলার।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD