October 6, 2022, 10:45 am

দুবাইয়ে আজ ভারত-পাকিস্তান মহারণ

যমুনা নিউজ বিডিঃ শ্রীলঙ্কার অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সংকট চরমে। অনেক অপেক্ষার পর এশিয়া কাপের ১৫তম আসর দ্বীপদেশটি থেকে উড়িয়ে নেওয়া হয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। তাই হয়তো গুছিয়ে উঠতে পারেনি আয়োজকরা। টুর্নামেন্ট শুরুর দিনেও আয়োজকদের অপ্রস্তুত চেহারাটা ধরা পড়ল। যেমন গতকাল উদ্বোধনী ম্যাচ মাঠে গড়ানোর কয়েক ঘণ্টা আগে বদলে যায় এশিয়া কাপের নাম!

শ্রীলঙ্কা-আফগানিস্তান ম্যাচের আগে টাইটেল স্পন্সর খুঁজে পেয়েছে এসিসি (এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল)। দুবাইভিত্তিক বহুজাতিক লজিস্টিক কোম্পানি ডিপি ওয়ার্ল্ড এশিয়া কাপের টাইটেল স্পন্সর হয়েছে।

ডিপি ওয়ার্ল্ড এশিয়া কাপের সবচেয়ে আকর্ষণীয় ম্যাচের অপেক্ষা ফুরাচ্ছে আজ। যে ম্যাচের আবেগ কাঁপিয়ে যায় ক্রিকেটের অলিগলি। হাইভোল্টেজ ম্যাচে আজ মুখোমুখি হচ্ছে ভারত-পাকিস্তান। দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় শুরু হবে ম্যাচটি।

পাকিস্তান-ভারত ম্যাচ সবসময় ‘মহারণের’ তকমা পেয়ে আসছে। এই ম্যাচের উত্তেজনা দুই দেশের ১৬০ কোটি জনতার মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকে না। কার্যত পুরো ক্রিকেট দুনিয়াই এই ম্যাচের দিকে তাকিয়ে থাকে। মরুর বুকে ম্যাচটিকে ঘিরে তর্জন-গর্জন চলছে বেশ। ক্রিকেটপ্রেমীরা প্রিয় দলের সমর্থনে গলা ফাটাচ্ছেন। তবে সব আকর্ষণ লুকিয়ে ২২ গজের লড়াইয়ে। গত বছর দুবাইয়ে টি-২০ বিশ্বকাপে ভারতকে গুড়িয়ে দিয়েছিল পাকিস্তান। ঐ ম্যাচে পাকিস্তানের তুরুপের তাস ফাস্ট বোলার শাহীন শাহ আফ্রিদি এবার দর্শক হয়ে আছেন ইনজুরির কারণে। তারপরও এক বছর আগের জয়টা উদ্দীপ্ত করছে বাবর আজমের দলকে। ব্যাটিংয়ে বাবর-রিজওয়ানের ওপেনিং জুটিই দলটির মূল শক্তি। শাহীন না থাকলেও নাসিম শাহ, হারিস রউফরা ভারতকে কাঁপাতে সক্ষম মনে করেন হেড কোচ সাকলাইন মুশতাক।

ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন ভারত অবশ্য বেশ নির্ভার। ইনজুরিতে সেরা পেসার জাসপ্রিত বুমরাহকে না পেলেও ভারসাম্যপূর্ণ দল তাদের। টি-২০-র দুর্দান্ত সব ক্রিকেটার আছেন রোহিত শর্মার দলে। ভারতের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে আজ তিন ফরম্যাটেই ১০০ ম্যাচ খেলার রেকর্ড গড়বেন বিরাট কোহলি। ক্যারিয়ারের শততম টি-২০ তে জ্বলে উঠবে কোহলির ব্যাট, এমনটাই আশা ভারতীয়দের।

পরিসংখ্যান অবশ্য ভারতের পক্ষে। আন্তর্জাতিক টি-২০ তে দুই দলের ৯ বারের লড়াইয়ে ৭ জয় ভারতের, পাকিস্তানের জয় ২টি। এশিয়া কাপে এই ফরম্যাটে সাক্ষাৎ হয়েছে একবার, জিতেছে ভারত।

ঐতিহ্যগতভাবে পাকিস্তান-ভারত লড়াইয়ের ভাগ্য গড়ে দেয় পাকিস্তানের বোলিং, ভারতের ব্যাটিং। দুবাইয়ে আজ কারা হাসবে শেষ হাসি বলা কঠিন, তবে মর্যাদার লড়াইটা জমে যাক, ক্রিকেটীয় বিনোদনে পূর্ণ হোক, এটাই সবার আশা।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD