August 10, 2022, 7:42 pm

অবিশ্বাস্য, অতুলনীয়, কোর্তোয়া

যমুনা নিউজ বিডিঃ রিয়াল মাদ্রিদের কাছে লিভারপুল শিরোপা হারিয়েছে বলার চেয়ে থিবো কোর্তোয়ার কাছেই হেরে হেরে গেছে অলরেডরা এটা বলাটাই  হয়তো বেশি প্রাসঙ্গিক। কোর্তোয়ার ওই গ্লাভস জোড়াতেই যেন লেখা ছিল চ্যাম্পিয়নস লিগের ভাগ্য! ম্যাচের একমাত্র গোলদাতা  ভিনিসিয়ুস জুনিয়র হলেও আসল নায়ক কোর্তোয়া।  অবিশ্বাস্য, অতুলনীয়, অতিমানবীয় এই বিশেষণগুলো দিয়েও হয়তো কোর্তোয়ার এই পারফরম্যানস ঠিকঠাক বোঝানো যাবে না। লিভারপুলের আক্রমণভাগের সামনে পুরো সময় দেয়াল হয়ে ছিলেন ৬ ফিট ৬ ইঞ্চির কোর্তোয়া। সালাহ -মানে-দিয়াজদের সব আক্রমণ একাই রুখে দিয়েছেন এই বেলজিয়ান গোলরক্ষক। ১৬ মিনিটের সময় সালাহর শট বাঁদিকে ঝাপিয়ে পড়ে ঠেকিয়ে দেন। সেই শুরু এরপর অবিশ্বাস্য ভাবে একের পর এক গোল বাচিয়েছেন কোর্তোয়া।

শুধু গ্লাভস নয়, হাত-পা-বুক-মাথা…শরীরের কোন অংশ দিয়ে গোল ঠেকাননি  কোর্তোয়া! ম্যাচের শেষ মিনিটেও সালাহর শট ঠেকিয়ে দলকে রক্ষা করেছেন ৩০ বছর বয়সী এই গোলরক্ষক। লিভারপুলের নেওয়া ৯টি অন টার্গেট শট কোর্তোয়ার  দেয়ালে বাধা পড়েছে। লিভারপুলের আক্রমণভাগ ম্যাচের শেষ পর্যন্ত চেষ্টা চালিয়েও কোর্তোয়ার দূর্ভেদ্য  দেয়াল ভাঙতে পারেনি।

ফুটবলে গোলদাতারাই ম্যাচের ফল বের করে আনে। তাই  সব আলো স্কোরারদের দিকে থাকে সাধারণত। সে হিসেবে ভিনিসিয়ুস জুনিয়র অবশ্যই প্রসংশার দাবিবার। তবে ফাইনালে মূল পার্থক্য গড়ে দিয়েছেন একজন  কোর্তোয়া। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত লড়ে যাওয়া কোর্তোয়া ছাপ রেখেছেন শেষ বাঁশি বাজার ঠিক আগ মূহুর্তেও। ম্যাচের শেষ মিনিটে ফিরমিনহোর ওই শটে কোর্তোয়া যেন বল ধরেননি,  শিরোপায়  লুফে নিয়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD