মঙ্গলবার, ০৩ অগাস্ট ২০২১, ০২:০১ অপরাহ্ন

জয় নিয়ে মাঠ ছাড়লো জার্মানি

যমুনা নিউজ বিডিঃ আরেকটি ম্যাচ, আবারও গোল পেলেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। যে গোলে তিনি কাটিয়েছেন জার্মানির বিপক্ষে গোলখরা। কিন্তু রোনালদোর খরা কাটলেও জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারেনি তার দল পর্তুগাল। এককথায় পর্তুগিজদের উড়িয়ে দিয়েছে জার্মানি।

মিউনিখের আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় শনিবার ‘এফ’ গ্রুপের ম্যাচে ৪-২ গোলে শিরোপাধারীদের হারিয়ে দিয়েছে তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা।

নিজেদের ইউরোর ইতিহাসে প্রথমবারের মতো হালি তথা চার গোল হজম করলো পর্তুগিজরা। শুধু তাই নয়, ইউরো কাপের ইতিহাসের প্রথম ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন দল হিসেবে এক ম্যাচে চার গোল হজমের বিব্রতকর রেকর্ডটিও নিজেদের করে নিয়েছে পর্তুগাল। এর আগে ২০১৪ সালের বিশ্বকাপে জার্মানির কাছেই চার গোল হজম করেছিল পর্তুগাল। সেদিন জার্মানির জয় ছিল ৪-০ গোলে। এ জয়ের সুবাদে পর্তুগালের বিপক্ষে ২১ বছর ধরে অপরাজিত থাকল জার্মানি।

প্রথম ম্যাচে ফ্রান্সের কাছে হেরে ইউরো শুরু করেছিল জার্মানরা, দ্বিতীয় ম্যাচেই স্বরূপে ফিরল গত আসরের সেমিফাইনালিস্টরা। এদিন বল পজিশনে আধিপত্য ধরে রাখার পাশাপাশি জার্মানি ১২টি শট করে। যেখানে অন টার্গেটে শট ছিল ৭টি। অন্যদিকে পর্তুগাল ৭টি শটের দুটি রাখতে পারে জালের দিকে।

তবে জার্মানির আক্রমণের ধারার বিপরীতে ১৫তম মিনিটে গোল করে এগিয়ে যায় পর্তুগাল। স্বাগতিকদের কর্নার হেডে মুক্ত করে রোনালদো বল সামনে বাড়িয়ে দেন। সেখান থেকে বের্নার্দো সিলভা দারুণ একটি ক্রসে দিয়েগো জোটার দিকে বল বাড়ান। জোটা এগিয়ে গিয়ে ফাঁকায় থাকা রোনালদোর দিকে পাস দিলে গোল করতে কোনো ভুল করনেনি পর্তুগাল অধিনায়ক।

এই গোলের ফলে মেজর টুর্নামেন্টে (বিশ্বকাপ ও ইউরো মিলে) ইউরোপিয়ান খেলোয়াড়দের সর্বোচ্চ গোলের তালিকায় ১৯ গোল নিয়ে বসলেন শীর্ষে, জার্মানির সাবেক স্ট্রাইকার মিরোস্লাভ ক্লোসার পাশে।

পিছিয়ে পড়ে অবশ্য দমেনি জার্মানি। তাদের একের পর এক আক্রমণে দিশেহারা পর্তুগাল দুই আত্মঘাতী গোলে পিছিয়ে বিরতিতে যায়। ৩৫তম মিনিটে ডান দিক থেকে আসা ক্রস পেয়ে ভলিতে মাঝ বরাবর কাই হাভার্টজকে বাড়ান গোসেন্স। সঙ্গে লেগে থাকা ডিফেন্ডার রুবেন দিয়াস বিপদমুক্ত করতে গিয়ে জালে ঠেলে দেন বল।

পরে ৩৯তম মিনিটে দ্বিতীয়বার আত্মঘাতী গোল হজম করে পর্তুগাল। গোলমুখে বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে নিজেদের জালেই নেন জোরালো শট  রাফায়েল গেররেরো।

বিরতির পর আক্রমণের ধার আরও বাড়ানো জার্মানি ৫১তম মিনিটে দলীয় একটি পারফরম্যান্সে আরও ব্যবধান বাড়ায়। টমাস মুলারের সঙ্গে ওয়ান টু ওয়ানে এগিয়ে যাওয়া জোসুয়া কিমিখ বল বাড়ান রবিন গোসেন্সের দিকে। তিনি কাই হাভার্টজের দিকে ক্রস করলে সেখান থেকে ঠিক প্রথমার্ধের রোনালদোর মতোই দলকে গোল উপহার দেন এই চেলসি ফরোয়ার্ড। আর ৬০ তম মিনিটে ডান দিক থেকে জোসুয়া কিমিখের ক্রসে লাফিয়ে হেডে স্কোরলাইন ৪-১ করেন গোসেন্স।

৬৭তম মিনিটে অবশ্য পর্তুগাল একটি গোল শোধ করে। হাভার্টজের ফাউল থেকে হোয়াও মোউতিনহো ফ্রি কিক নিলে রোনালদো বল পেয়ে জোটার দিকে কাট করেন। আর লিভারপুল তারকা অনায়াসেই গোলটি করেন।

বিরতির পর আক্রমণের ধার আরও বাড়ানো জার্মানি ৫১তম মিনিটে দলীয় একটি পারফরম্যান্সে আরও ব্যবধান বাড়ায়। টমাস মুলারের সঙ্গে ওয়ান টু ওয়ানে এগিয়ে যাওয়া জোসুয়া কিমিখ বল বাড়ান রবিন গোসেন্সের দিকে। তিনি কাই হাভার্টজের দিকে ক্রস করলে সেখান থেকে ঠিক প্রথমার্ধের রোনালদোর মতোই দলকে গোল উপহার দেন এই চেলসি ফরোয়ার্ড। আর ৬০ তম মিনিটে ডান দিক থেকে জোসুয়া কিমিখের ক্রসে লাফিয়ে হেডে স্কোরলাইন ৪-১ করেন গোসেন্স।

৬৭তম মিনিটে অবশ্য পর্তুগাল একটি গোল শোধ করে। হাভার্টজের ফাউল থেকে হোয়াও মোউতিনহো ফ্রি কিক নিলে রোনালদো বল পেয়ে জোটার দিকে কাট করেন। আর লিভারপুল তারকা অনায়াসেই গোলটি করেন।

ম্যাচের বাকি অংশে দুদলের সামনেই আরও কয়েকটি সুযোগ আসে। তবে গোল না হওয়ায় ৪-২ ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে জার্মানি।

দুই ম্যাচে এক জয় ও এক হারে দ্বিতীয়স্থানে উঠে এলো জার্মানি। একই পরিণতির পর্তুগাল তিনে রয়েছে। দুই ম্যাচে এক জয় ও এক ড্রয়ে ৪ পয়েন্ট নিয়ে এই গ্রুপে শীর্ষে ফ্রান্স। আর সমান ম্যাচে এক পয়েন্ট পাওয়া হাঙ্গেরি তলানিতে রয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com