শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০২:৫২ অপরাহ্ন

বগুড়ায় ওয়াইফাই সংযোগ খুলতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পর্শে স্কুলছাত্রের মৃত্যু

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ কোচিং সেন্টারে নেওয়া ওয়াইফাই সংযোগ খুলতে গিয়ে বগুড়ার শেরপুরে বিদ্যুৎস্পর্শে এক স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। তাঁর নাম রকি খান (১৫)। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়। ওই স্কুলছাত্র উপজেলার সুঘাট ইউনিয়নের সুঘাট গ্রামের মাহবুব খানের ছেলে এবং স্থানীয় ফুলজোড় উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীতে পড়ালেখা করতো।

পুলিশ ও নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, স্কুলছাত্র রকি খান ও তার বন্ধুরা মিলে একই ইউনিয়নের আওলাকান্দি বাজারে একটি কোচিং সেন্টার খুলেন। প্রথম শ্রেণী থেকে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের পাঠদান করতেন তারা। সেখানে ওয়াইফাই সংযোগ লাগিয়ে জনসাধারণের জন্য ইন্টারনেট সেবা চালু করেন। তাদেরকে নানাবিধ কাজকর্ম করে দিতেন তারা।

তবে বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রুখতে সরকারিভাবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও কোচিং সেন্টারগুলো বন্ধ ঘোষণা করা হয়। এরই ধারাবাহিকতায় এই কোচিং সেন্টারটির কার্যক্রমও বন্ধ করে দেন তারা। দীর্ঘদিন কন্ধ থাকার কারণে ঘরভাড়া বকেয়া পড়ে যায়। এমনকি বকেয়া ভাড়া পরিশোধে ব্যর্থ হয়ে কোচিং সেন্টার বিলুপ্ত ঘোষণা দিয়ে ঘর ছেড়ে দেন। তাই মঙ্গলবার সকাল দশটা থেকে রকি খানসহ তার বন্ধুরা ওই ঘর থেকে মালামালগুলো সরিয়ে নিচ্ছিলেন। একপর্যায়ে কোচিং সেন্টারে নেওয়া ওয়াইফাই সংযোগ খুলতে গিয়ে স্কুলছাত্র রকি খান বিদ্যুৎস্পর্শে গুরুতর আহত হয়ে পড়েন। পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় তাঁকে দ্রুত উদ্ধার করে শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। আর সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

শেরপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) তন্ময় বর্মন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, স্কুলছাত্র মৃত্যুর ঘটনায় কোনো অভিযোগ না থাকায় লাশ দাফনের জন্য নিহতের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com