বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:১৭ অপরাহ্ন

গাজায় সেনাবাহিনী পাঠাতে প্রস্তুত মালয়েশিয়া

যমুনা নিউজ বিডিঃ ফিলিস্তিনের নিরীহ জনগণের ওপর নির্বিচার হামলা চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েল। এ নিয়ে টানা ৮দিনের মতো দখলদার বাহিনীর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২০০ ছাড়িয়েছে। এদিকে মালয়েশিয়া গাজায় শান্তিরক্ষী পাঠাতে প্রস্তুত আছে বলে জানিয়েছে।

মালয়েশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব বলেছেন, যদি জাতিসংঘ অনুরোধ জানায় তাহলে গাজায় শান্তিরক্ষী পাঠাতে প্রস্তুত আছে তার দেশ।

মালয়েশিয়ার সিনিয়র এই মন্ত্রী বলেন, যেহেতু এখানে আন্তর্জাতিক আইনের বিষয় আছে তাই মধ্যপ্রাচ্যে শান্তিরক্ষী টিম পাঠানোর ব্যাপারে মালয়েশিয়া কোনও সিদ্ধান্ত নিতে পারে না।

ইয়াকুব বলেন, এটার সিদ্ধান্ত নেবে জাতিসংঘ। আমরা নিজেরা সেনাবাহিনী পাঠাতে পারবো না। এর আগে জাতিসংঘের মাধ্যমে বিভিন্ন দেশে শান্তিরক্ষী টিম পাঠিয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে লেবানন, ফিলিপিন্স, সুদান, সিয়েরা লিওন এবং কঙ্গো।

গতকাল মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া এবং ব্রুনেই ইসরায়েল এবং হামাসের প্রতি যুদ্ধবিরতি এবং উত্তেজনা কমানোর আহ্বান জানিয়েছে।

এই তিন দেশের নেতারা যৌথ বিবৃতিতে যুদ্ধবিরতি মনিটর করতে একটি অন্তর্বর্তী আন্তর্জাতিক টিম পাঠাতে আহ্বান জানিয়েছে। এছাড়া গাজা সংকট নিয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে জাতিসংঘের প্রতিও আহ্বান জানিয়েছে তারা। এদিকে এই সহিংসতা বন্ধে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ দ্রুত একমত হতে ব্যর্থ হওয়ায় পুত্রজায়া হতাশা প্রকাশ করেছে।

চলমান এ সহিংসতা থামাতে রোববার (১৬ মে) জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিল বৈঠকে বসেছিল। ফিলিস্তিন ও ইসরায়েলের মধ্যকার সংঘাত বন্ধের আহ্বান সংবলিত ঘোষণা দেওয়ার লক্ষ্যে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের তৃতীয় বৈঠকটিও ব্যর্থ হয়েছে। এর আগে রুদ্ধদ্বার দুটি বৈঠকও ব্যর্থ হয়। সর্বশেষ বৈঠকে ইসরায়েলি বিমান হামলায় গাজায় বিভিন্ন ভবনের ধ্বংসস্তূপ থেকে মানুষকে জীবিত ও মৃত উদ্ধারে ইসরায়েলের সঙ্গে সাময়িক অনুমতির চুক্তিতেও পৌঁছাতে পারেনি নিরাপত্তা পরিষদ।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com