বৃহস্পতিবার, ২৪ Jun ২০২১, ০৩:৩১ পূর্বাহ্ন

ঈদের দিনেও গাজায় ইসরায়েলের নৃশংস হামলা: নিহত ১৯

যমুনা নিউজ বিডিঃ ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি দখলদার বাহিনীর অব্যাহত বিমান হামলায় নিহতের সংখ্যা বাড়ছেই। বৃহস্পতিবার (১৩ মে) দেশটিতে ঈদুল ফিতর উদযাপিত হচ্ছে। মুসলিমদের উৎসবের এই দিনটিতেও হামলা বন্ধ রাখেনি ইসরায়েলি বাহিনী।

উল্টো ঈদের দিনে ইসরায়েলি বাহিনীর নৃশংস হামলায় গাজায় আরও ১৯ জন নিরস্ত্র ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। গত ১০ মে থেকে ইসরায়েলের অব্যাহত বিমান হামলায় গাজায় নিহত বেড়ে ৮৪ জনে দাঁড়িয়েছে। এর মধ্যে ১৭ জন শিশু। হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন আরও ৪৮০ জন ফিলিস্তিনি। খবর আল-জাজিরার।

অপরদিকে, ফিলিস্তিনের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের ইসরায়েল অভিমুখে রকেট হামলায় এ পর্যন্ত ৭ জন ইসরায়েলি নিহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে একজন ভারতীয় নারী ও ইসরায়েলি এক সেনা রয়েছেন। আর হামাসের হামলায় শতাধিক ইসরায়েলি আহত হয়েছেন।

আল-জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়, ঈদের দিনেও বিমান হামলা চালিয়ে গাজার বেশ কয়েকটি বহুতল ভবন ধ্বংস করে দিয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। ইসরায়েলি সেনাবাহিনী বলছে, বুধবার গভীর রাতে এবং বৃহস্পতিবার সকালে গাজার নিকটবর্তী ইসরায়েলের বিভিন্ন শহরে কয়েকশ রকেট নিক্ষেপ করেছে হামাস। তারা পশ্চিম তীরে আরও সেনা মোতায়েন করেছে। সেখানে সেনা সংখ্যা বাড়ানোর পাশাপাশি যুদ্ধাস্ত্র সামগ্রীর সরবরাহও বাড়ানো হয়েছে।

এদিকে কাসেম ব্রিগেডের মুখপাত্র আবু ওবাইদা দাবি করেছেন, হামাসের সশস্ত্র শাখা প্রথমবারের মতো ইসরায়েলের দক্ষিণাঞ্চলে ইলান অ্যান্ড আসাফ রামন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে রকেট নিক্ষেপে সক্ষম হয়েছে।

আল-জাজিরাকে তিনি জানিয়েছেন, গাজা থেকে প্রায় ২২০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত ইলান অ্যান্ড আসাফ রামন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অন্তত ‘আয়াশ-২৫০’ রকেট নিক্ষেপ করেছেন তারা।

১৯৯৬ সালে ইসরায়েলি সেনাদের হাতে নিহত কামেস বিগ্রেডের কমান্ডার ইয়াহইয়া আয়াশের নামে রকেটটির নামকরণ করা হয়। এটি ২৫০ কিলোমিটার দূরের লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানতে সক্ষম।

তবে রামন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে রকেট হামলা এবং ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে এখনও কিছু জানায়নি ইসরায়েল।

এদিকে যুক্তরাজ্যের প্রধনামন্ত্রী বরিস জনসন অবিলম্বে দুই পক্ষকে হামলা বন্ধের আহ্বান জানিয়েছেন। অপরদিকে রাশিয়া ও মিসরের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় অবিলম্বে গাজায় ইসরায়েলি হামলা বন্ধের দাবি জানিয়েছেন। মিসরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এদিন রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে টেলিফোন করেন। তারা গাজায় ইসরায়েলির রক্তাক্ত হামলা বন্ধে দ্রুত বিশ্ব সম্প্রদায়কে পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানান।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com