বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০৩:৫১ পূর্বাহ্ন

মানুষের হৃদয়ের মণিকোঠায় আকবরিয়া অ্যাপস লিমিটেড

আকবরিয়া অ্যাপস লিমিটেড ও হোম ডেলিভারির মাধ্যমে শতাব্দীর স্বাক্ষর এ প্রতিষ্ঠানটি খাদ্য উৎপাদন ও বিপণনের মধ্য দিয়ে স্থান করেছে প্রত্যেক মানুষের হৃদয়ের মণিকোঠায় এমন কথা বললেন বগুড়া শহরের বনানী এলাকার ভার্সিটি পড়ুয়া ছাত্র মোঃ মেহেদী হাসান। লকডাউন এর কবলে পড়ে বাড়ির খাবার একঘেয়েমি হয়ে গেছে।জিহŸার স্বাদ বিষাদে পরিণত হয়েছে। প্রত্যেক মানুষই অভ্যাসের দাস। প্রতিনিয়ত শহরে ব্যবসা, চাকুরী ও অন্যান্য কাজ সেরে বাড়ি ফেরার পথে আকবরিয়ার পছন্দের খাবার ক্রয় করাই ছিল নিত্যদিনের সঙ্গী। নাস্তার টেবিলে আকবরিয়া সুস্বাদু পণ্য বেশ মানানসই। সপরিবারে বসে আকবরিয়ার মোরগ পোলাও, কাচ্চি বিরিয়ানি, দই, মিষ্টি সহ নানা রকমের খাবার যার স্বাদ এর জুড়ি নেই। সিয়াম সাধনার মাসে হরেক রকম ইফতারি পণ্য খেয়ে মন জুড়ে যায়। রসনার তৃপ্তি হতে ক্রেতারা যখন বঞ্চিত হতে যাচ্ছে তখনই এ মানবিক খাদ্য ও বিপণন প্রতিষ্ঠানটি শুরু করলো আকবরিয়া লিমিটেড অ্যাপস ও হোম ডেলিভারির মাধ্যমে ঘরে ঘরে খাদ্য পৌঁছে দেয়ার কার্যক্রম। প্রতিষ্ঠানটির হরেক রকমের লাচ্ছা সেমাই এর কদর শুধু দেশে নয়, রয়েছে দেশের বাইরেও। দিনাজপুরের আইনে অধ্যায়নরত এক ছাত্রী জানায় শারমিন আরা, ছোটবেলা হতেই আমার বাবা ঈদুল ফিতরের পূর্বে আকবরিয়া লাচ্ছা সেমাই সংগ্রহ করেন। এই প্রতিষ্ঠানের সেমাই স্বাদে ও মানে অনন্য। আকবরিয়া লাচ্ছা সেমাই ব্যতীত ঈদের আনন্দ অপূর্ণ থেকে যায়। গাজীপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটির আইসিটি ইন এডুকেশন বিভাগে অধ্যয়নরত ছাত্র মোঃ তৌফিক হাসান তুষার বলেন, আকবরিয়ার ফ্রæট কেক দিয়ে সকালের নাস্তা সেরে ফেলি। এর স্বাদে মন জুড়ে যায়। একবার খেলে বারবার খেতে ইচ্ছা করে।দেশের প্রত্যেক মানুষের রসনার তৃপ্তির প্রত্যাশা পূরণের বাতিঘর হিসেবে কাজ করছে আকবরিয়া লিমিটেড। বাধাহীন, গন্ডিহীন আনন্দ উল্লাসে মেতে ওঠা আকবরিয়া লিমিটেড-এর একদল যুবক আকবরিয়া অ্যাপস লিমিটেড ও হোম ডেলিভারির মাধ্যমে পণ্য পৌঁছে দিয়ে রসনার তৃপ্তি মেটাচ্ছে এমন কথা জানালেন ডাঃ জিল্লুর রহমান , ফাইজা কবির, সাহাদাৎ হোসেন সহ অনেকে।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com