Home / সারাদেশ / বগুড়া / বগুড়ার সাংসদ নুরুল ইসলাম ওমরের কোন আয় নেই

বগুড়ার সাংসদ নুরুল ইসলাম ওমরের কোন আয় নেই

যমুনা নিউজ বিডি:  বগুড়া-৬ (সদর) আসনের জাতীয় পার্টি দলীয় সাংসদ মোঃ নূরুল ইসলাম ওমরের পেশা পাঁচ বছরের ব্যবধানে বদলে গেছে। ২০১৩ সালের ডিসেম্বরে তিনি ছিলেন ওয়ার্ল্ড ভিশনের ঠিকাদার ছিলেন। তখন তিনি ব্যবসা থেকে বছরে আয় করতেন ৩ লাখ ৯৬ হাজার টাকা। তাছাড়া কৃষি খাত থেকেও তিনি আয় করতেন ১০ হাজার টাকা। কিন্তু পেশা বদলে ‘সংসদ সদস্য’ হওয়ায় এখন ওই দু’টিসহ কোন খাতেই তার একটি টাকাও আয় নেই। দশম সংসদ নির্বাচনে এবং একাদশ সংসদ নির্বাচনে দাখিল করা হলফনামা থেকে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।
বগুড়া জেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক নূরুল ইসলাম ওমরের বর্তমানে একটি টাকা আয় না হলেও আগের তুলনায় নগদ টাকার পরিমাণ প্রায় ৮ লাখ বেড়েছে। ২০১৩ সালের ২ ডিসেম্বর দাখিল করা হলফনামায় তিনি তার কাছে ৪০ লাখ ৬৬ হাজার ৩৪৪ টাকা নগদ থাকার কথা জানিয়েছিলেন। আর তার স্ত্রীর কাছে ছিল নগদ ১ লাখ টাকা। তবে চলতি বছরের ২৭ নভেম্বর দাখিল করা হলফনামায় তিনি তার কাছে ৪৮ লাখ ৭২ হাজার ১৬৩ টাকা থাকার কথা জানিয়েছেন। অবশ্য এবার স্ত্রীর নামে কোন নগদ টাকা নেই বলে উল্লেখ করেছেন তিনি।
স্নাতক পাশ এই সাংসদ পাঁচ বছরের ব্যবধানে তার নামে থাকা ব্যাংক ঋণের পরিমাণ প্রায় ৪০ লাখ টাকা কমাতে সক্ষম হয়েছেন। ২০১৩ সালে ব্যাংকে তার ১ কোটি টাকা ঋণ ছিল। বর্তমানে তার ঋণের পরিমাণ ৬১ লাখ ৩৩ হাজার ৭৯৬ টাকা। পাঁচ বছরের ব্যবধানে কৃষি জমি না বাড়ালেও (৩৫ শতক) নতুন করে ১৯ শতক অকৃষি জমির মালিক হয়েছেন তিনি। যার মূল্য ২৩ লাখ ২ হাজার টাকা। তবে পাঁচ বছর আগে দালান, আবাসিক ও বাণিজ্যিক খাতে তার ৪০ লাখ টাকা মূল্যের ১৮ শতকের যে সম্পদের উল্লেখ ছিল এখন সেটি আর নেই। বরং সেখানে এখন ৯ লাখ টাকা মূল্যের টিনসেড বাড়ি দেখানো হয়েছে।
বিরোধী দলীয় চীফ হুইপের দায়িত্বপালনকারী নূরুল ইসলাম ওমরের ৩০ হাজার টাকা মূল্যের স্বর্ণালংকার, একই টাকা মূল্যের ইলেক্ট্রনিক্স সামগ্রী ও ২০ হাজার টাকা মূল্যের আসবাবপত্র রয়েছে। নির্বাচনে তার সম্ভাব্য ব্যয় হবে ৮ লাখ টাকা। যা তিনি সম্মানী ভাতা ও বিভিন্নভাবে সঞ্চয় থেকে যোগাবেন।

Check Also

ওসমানী বিমানবন্দর থেকে ৬ কেজি স্বর্ণ জব্দ

যমুনা নিউজ বিডি: সিলেটের ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ছয় কেজি ৩২ গ্রাম ওজনের জব্দ করেছে কাস্টমস …

Powered by themekiller.com