July 13, 2024, 7:12 am

চা পানের নিয়ম-কানুন

যমুনা নিউজ বিডি: বিশ্বজুড়ে পানির পরই সবচেয়ে সহজলভ্য ও জনপ্রিয় পানীয় হচ্ছে চা। আর এ চা পছন্দ করেন না, এমন মানুষ খুব কমই রয়েছেন।

কেউ দুধ চা, কেউ রং চা পান করে থাকেন। সময়ের সঙ্গে চায়ের ধরন ও পরিবেশনে হয়তো পরিবর্তন এসেছে। একই সঙ্গে বেড়েছে চায়ের গ্রাহকও।

পছন্দ অনুযায়ী চা পান ব্যক্তিভেদে কম-বেশি হয়। কেউ দিনে ১ কাপ, কেউ ২ কাপ, আবার কেউ প্রতিবার খাবার খাওয়ার পরই চা পান করেন। কারো কারো আরো বেশি চা পান করা হয়।

কিন্তু এই জনপ্রিয় পানীয় চা কখন পান করতে হয়, কীভাবে পান করতে হয়, সেই প্রশ্ন রাখা হলে খুব কম সংখ্যক মানুষই উত্তর দিতে পারবেন। সম্প্রতি দেশের একটি গণমাধ্যমের সঙ্গে চা পানের বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন রাজধানী ঢাকার মহাখালী শেখ রাসেল জাতীয় গ্যাস্ট্রোলিভার ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের পরিপাকতন্ত্র বিশেষজ্ঞ ডা. মুসআব খলিল। এবার তাহলে এ ব্যাপারে জেনে নেয়া যাক।

সকালে ঘুম থেকে উঠার পর খালি পেটে চা পান করা খুব সাধারণ এবং জনপ্রিয় একটি অভ্যাস। যাকে ইংরেজিতে ‘বেড টি’ বলা হয়। কিন্তু ঘুম থেকে উঠার পর খালি পেটে চা পানে উপকারের বিপরীতে ক্ষতির আশঙ্কাই বেশি। কেননা, চা হচ্ছে অম্লজাতীয় তরল। এতে ট্যানিন ও ক্যাফেইন পদার্থ রয়েছে। যা মানবদেহের পাকস্থলীর অ্যাসিড উৎপাদন ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। ফলে সকালে খালি পেটে চা পানে শরীরে অম্ল বা ক্ষারের ভারসাম্য বিঘ্ন হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

অনেকে আবার চিনিসহ চা পান করেন। চায়ে চিনি যোগ করা ঠিক নয়। এতে মুখগহ্বরের জীবাণুর সঙ্গে একাকার হয়ে অম্ল তৈরি করে। যা আমাদের দাঁতের ক্ষতি করে থাকে। আর যাদের অ্যাসিডিটি রয়েছে, তাদের সমস্যা তীব্র হয়। আবার চায়ে বিদ্যমান ক্যাফেইন উপাদান অনেক সময় বুক জালাপোড়াও তৈরি করে থাকে।

এমন অনেকে রয়েছেন যাদের হৃৎস্পন্দনজনিত বিভিন্ন সমস্যা রয়েছে। তাদের চা এড়িয়ে চলাই ভালো সিদ্ধান্ত। চায়ে বিদ্যমান ক্যাফেইন হৃৎস্পন্দন বৃদ্ধির কারণ। এ কারণে সকালে চা পানের জন্য উপযুক্ত সময় হচ্ছে নাশতার ১৫/২০ মিনিট পর।

রাতে চা পান কি ঘুমে প্রভাব ফেলে?

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড মেডিকেল স্কুলের এক গবেষণায় দেখা গেছে, রাতে ঘুমানোর আগে চা পান করলে এতে ঘুমে তেমন প্রভাব পড়ে না। তবে চা ভেদে এতে ক্যাফেইনের পরিমাণে ভিন্নতা থাকায় ঘুমে ব্যাঘাত হতে পারে। কেননা, ক্যাফেইন আমাদের জাগিয়ে রাখতে সহায়তা করে।

ব্ল্যাক টি বা লাল চায়ে ৪০ মিলিগ্রামের মতো ক্যাফেইন থাকে। গ্রিন টি বা সবুজ চায়ে থাকে প্রায় ৩৫ মিলিগ্রাম। তবে হারবাল চা বা ভেষজ চায়ে ক্যাফেইন থাকে না বলা যায়। এ কারণে বলা যায় রাতে ঘুমানোর আগে ক্যাফেইনমুক্ত চা পানে ঘুমে ব্যাঘাত হওয়ার সম্ভাবনা নেই। আর ক্যামোমাইল চা, ভেষজ চা ঘুম ও শরীরকে রিল্যাক্স ও শিথিল করার জন্য অনেক উপকারী।

তবে দিনের অন্য যেকোনো সময় চা পান করা যেতে পারে, তাতে ক্ষতি নেই। কিন্তু খালি পেটে চা পান না করাই ভালো। খাবার খাওয়ার অন্তত এক থেকে দেড়-দুই ঘণ্টা পর চা পান করা উচিত।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © jamunanewsbd.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD