শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:২০ অপরাহ্ন

বিধিবহির্ভূত পুকুর লিজ দেওয়ায় রাজশাহীতে ইউএনওর বিরুদ্ধে আদালতের নিষেধাজ্ঞা

মঈন উদ্দীন: রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার কাতিলা গ্রামে জনসাধারণের ব্যবহার্য পাঁচটি পুকুর বিধিবহির্ভূতভাবে লিজ দেওয়ায় বাগমারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শরিফ আহম্মেদ এর বিরুদ্ধে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন আদালত। বুধবার (২৫ আগস্ট) বাগমারা সিনিয়র সহকারী জজ আদালতের ০৬/১৮ অ.প্র. মামলায় আদালত এই আদেশ দেন সিনিয়র সহকারী জজ মারুফ আল্লাম। আদালতের নিষেধাজ্ঞার বিষয়টি শুক্রবার (২৭ আগস্ট) সকাল ১০ টার দিকে নিশ্চিত করেছেন বাদী পক্ষের মামলার আইনজীবী মোছা. শাহিন আরা খাতুন।
তিনি বলেন, ‘রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার কাতিলা গ্রামে সর্বসাধারণের ব্যবহার্য ৫টি পুকুর রয়েছে। স্থানীয় জনগণ তাদের কৃষিজমিতে সেচকাজের প্রয়োজনে এই পুকুরগুলো ব্যবহার করে। সরকারি জলমহাল নীতিমালা অনুযায়ী এই পুকুরগুলো সর্বসাধারণের ব্যবহারের জন্য, যা লিজযোগ্য নয়। তারপরও ২০১৮ সালের দিকে ইউএনও সরকারি বিধির তোয়াক্তা না করেই পুকুরগুলো লিজ দেন। এতে সেখানকার স্থানীয়রা বেশ সমস্যায় পড়েন। পরে সেখানকার স্থানীয় বাসিন্দাদের পক্ষে সিদ্দিকুর রহমানসহ কয়েকজন বাগমারা সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে ‘প্রতিনিধিত্বমূলক মামলা’ দায়েরপূর্বক ইউএনওর বিরুদ্ধে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা চান।’
গত বুধবার (২৫ আগস্ট) দুপুর ১২টার দিকে আদালত ইউএনওর বিরুদ্ধে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা জারি করেন। মূল মোকদ্দমাটি নিষ্পত্তি না হওয়ায় বাগমারা থানার কাতিলা মৌজার আরএস ২৯১২, ২৭৩১, ২৬৩৪, ৩০২৫ দাগের পুকুরগুলো লিজ প্রদান করা কিংবা জনসাধারণের ব্যবহারে বাধাবিঘ্ন সৃষ্টি করা থেকে বারিত করে ইউএনওর বিরুদ্ধে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা জারি করেন আদালত।
এবিষয়ে রাজশাহী জেলা প্রশাসক মো. আব্দুল জলিল বলেন, ‘আমি বিষয়টি সম্পর্কে একেবারেই অবগত নয়, আপনার মাধ্যমেই বিষয়টি জানতে পারলাম। তাছাড়া আদালত থেকেও এই বিষয়ে কোনো প্রকার নথিও প্রাপ্ত হয়নি। তবে বাগমারা ইউএনও’র বিষয়ে আদালত কোনো প্রকার আদেশ জারি করে থাকলে সেই আদেশ আমরা মানতে বাধ্য। এ সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে পরবর্তীতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।’

 

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com