মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৮:২৬ অপরাহ্ন

বগুড়া পৌরসভায় উন্নয়নের রোল মডেল ৮নং ওয়ার্ড

এ কে আজাদঃ  বগুড়া পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র রেজাউল করিম বাদশার নেতৃত্বে নতুন পরিষদ দায়িত্ব গ্রহনের পর থেকে তাদের দিন রাত পরিশ্রমে পাল্টে যেতে শুরু করেছে পৌরসভার চিত্র। নাগরিক সমস্যা সমাধানে কাংখিত সিদ্ধান্ত গ্রহন করে রাস্তা, ড্রেন সহ বিভিন্ন অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন হওয়ায় পৌরবাসী অভিভূত। এর মধ্যে অন্যতম পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ড।

বগুড়া পৌরসভা কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, গত ২৯ মার্চ নবনির্বাচিত মেয়র রেজাউল করিম বাদশা আনুষ্ঠানিকভাবে মেয়রের দায়িত্ব গ্রহন করেন। এরপর থেকে তিনি কাউন্সিলরদের সাথে নিয়ে পৌরসভার বিদ্যমান সমস্যা সমাধানে দিনরাত কাজ করছেন। এতে পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডের চিত্র পাল্টে যেতে শুরু করেছে। এর অন্যতম পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ড। শহরের সাতমাথা থেকে শুরু করে সেউগাড়ী, সূত্রাপুরের একাংশ, সবুজবাগ,মালগ্রামের একাংশ, জামিলনগর নিয়ে এ ওয়ার্ড গঠিত। বিগত ২৮ ফেব্রুয়ারীর সর্বশেষ নির্বাচনে সাবেক ছাত্রনেতা ও সাবেক কমিশনার (২০০৪-২০১১) অধ্যক্ষ মোঃ এরশাদুল বারী (এরশাদ ) দ্বিতীয়বার কাউন্সিলর নির্বাচিত হওয়াার পর দায়িত্ব গ্রহনের আগেই এলাকার সমস্যা চিহ্নিত করে উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহন করেন। এরই অংশ হিসেবে গত আড়্ইা মাসে ১৭ লক্ষ টাকা ব্যয়ে তিনি রাস্তা, ড্রেন, গাইড ওয়াল নির্মাণ করেছেন। এর মধ্যে রয়েছে, ৫০০ মিটার রাস্তা কার্পেটিং, ৩০০ মিটার রাস্তা ইট সোলিং , ৫০০ মিটার গাইড ওয়াল নির্মাণ। এ ছাড়া বর্তমানে ৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে বর্ষাকালে অত্র ওয়ার্ডের জলবদ্ধতা নিরসনের লক্ষ্যে সেউজগাড়ী কৃষি ফার্ম থেকে জামিলনগর পর্যন্ত এবং শহীদ চাঁন্দু ষ্টেডিয়াম থেকে বিআরটিসি মার্কেট পর্যন্ত বড় ড্রেন পরি¯কার পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এর ফলে ওয়ার্ডে আর কোন জলাবদ্ধতা হবে না বলে জানিয়েছে পৌরসভার প্রকৌশল বিভাগ।

উন্নয়ন প্রসঙ্গে ৮নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর অধ্যক্ষ মোঃ এরশাদুল বারী (এরশাদ ) বলেন, আমার ওয়ার্ডকে পৌরসভার উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে গড়ে তুলতে কাজ করছি। এ লক্ষ্যে বিদ্যমান সমস্যা চিহ্নিত করে বাস্তবায়ন কাজ শুরু হয়েছে। ওয়ার্ডবাসীর নিশ্চয় মনে থাকার কথা যে, বিগত ২০০৪ সাল থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত প্রথমে কমিশনার ও পরে কাউন্সিলর হিসেবে দায়িত্ব পালন কালে ওয়ার্ডের কোন উন্নয়ন বাকী ছিল না। কিন্তু গত ১০ বছরে তেমন উন্নয়ন কাজ না হওয়ায় ওয়ার্ডটি সমস্যায় জর্জরিত হয়ে পড়েছে। এসব সমস্যা কাঁধে নিয়ে আমারও পথচলা শুরু করেছি। সকলের সহযোগিতা পেলে সকল সমস্যা সমাধান হবে ইনশাআল্লাহ। তাই সার্বিক কাজে ওয়ার্ডবাসীর সকলের সহযোগিতা চাই।

বগুড়া পৌরসভার মেয়র রেজাউল করিম বাদশা বলেন, পৌরসভার সমস্যা সমাধানে বিভিন্ন প্রকল্প গ্রহন করা হয়েছে। নিজস্ব তহবিলের পাশাপাশি সরকারের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে অর্থ সংগ্রহের চেষ্টা চলছে। এ ব্যাপারে স্থানীয় সরকার মন্ত্রনালয় সহ সরকারের বিভিন্ন
সংস্থা এবং সকলের সার্বিক সহযোগিতা চাই।

Please Share This Post in Your Social Media


© All rights reserved ©  jamunanewsbd.com