Home / খেলাধুলা / সেঞ্চুরির কাছে গিয়ে লিটনের বিদায়; ভাঙল দুর্দান্ত জুটি

সেঞ্চুরির কাছে গিয়ে লিটনের বিদায়; ভাঙল দুর্দান্ত জুটি

যমুনা নিউজ বিডি: ওয়ানডেতে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ রানের ওপেনিং জুটির রেকর্ড অনেক পুরনো। সেই ১৯৯৯ সালের ২৫ মার্চ এই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষেই ঢাকায় ১৭০ রানের ওপেনিং জুটি গড়েছিলেন মেহরাব হোসেন অপি এবং শাহরিয়ার নাফীস। আজ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ইমরুল কায়েস আর লিটন দাসের ১৪৮ রানের জুটি স্থান পেল ৫ নম্বরে। আগের জুটিগুলো যথাক্রমে ১৫০, ১৫৪ এবং ১৫৮ রানের।

আজ শুরু থেকেই বিধ্বংসী মেজাজে খেলছিলেন লিটন দাস। তার ৭৭ বলে ৮৩ রানের ইনিংস শেষ হলো সিকান্দার রাজার বলে ত্রিপানোর তালুবন্দি হয়ে। ইনিংসে ছিল ১২টি চার এবং ১টি ছক্কা।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী ক্রিকেট স্টেডিয়ামে জিম্বাবুয়ের দেওয়া ২৪৭ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে দলকে ভালো শুরু এনে দেন লিটন দাস এবং ইমরুল কায়েস। মারকুটে মেজাজে খেলা লিটনের বিপরীতে ইমরুল কিছুটা ধীরস্থির শুরু করলেও পরে হাত খোলেন। প্রথম ওভারে রিভিউ নিয়ে বেঁচে যাওয়া লিটন ৪৬ বলে ৮ চার ১ ছক্কায় তুলে নেন হাফ সেঞ্চুরি। লিটনের পর ৫৭ বলে হাফ সেঞ্চুরি পূরণ করেন ইমরুল কায়েস।

এর আগে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৭ উইকেটে ২৪৬ রান তুলে সফরকারী জিম্বাবুয়ে। দলীয় ১৮ রানে সাইফউদ্দিনের স্লোয়ার অধিনায়ক মাসাকাদজার (১৪) ব্যাটের কানায় লেগে চলে যায় মুশফিকুর রহিমের গ্লাভসে। অধিনায়কের দ্রুত বিদায়ের পর প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেছিলেন অভিজ্ঞ ব্রেন্ডন টেইলর এবং সিফাস জুওয়াও। দুজনে মিলে গড়েন ৫২ রানের জুটি। ঘূর্ণিবলে জুওয়াওকে (২০) ফজলে মাহমুদের তালুবন্দি করে জুটি ভাঙেন মিরাজ।

কিন্তু অভিজ্ঞ ব্রেন্ডন টেইলরকে থামানো যাচ্ছিল না। তৃতীয় উইকেটেও তিনি উইলিয়ামসকে সঙ্গে নিয়ে ৭৭ রানের জুটি গড়েন। অবশেষে মাহমুদ উল্লাহর বলে এলবিডাব্লিউয়ের ফাঁদে পড়ে থামে তার ৭৩ বলে ৯ চার ১ ছক্কায় ৭৫ রানের চমৎকার ইনিংস। সাইফউদ্দিনের দ্বিতীয় শিকার হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরেন শন উইলিয়ামস (৪৭)।

তবে হাত চালিয়ে খেলতে থাকেন সিকান্দার রাজা। চতুর্থ এবং পঞ্চম উইকেটে উইলিয়ামস আর মুরকে নিয়ে গড়া তার দুটি জুটিই ছিল ৪১ রানের। রাজাকে ৪৯ রানে মুশফিকের গ্লাভসবন্দি করেন অধিনায়ক মাশরাফি। মুস্তাফিজ তার প্রথম শিকার ধরেন পিটার মুরকে (১৭) মেহেদি মিরাজের তালুবন্দি করে।

এরপর আবারও সাইফউদ্দিন ঝলক। তার একটি শর্ট বলে এলটন চিগাম্বুরা (৩) পয়েন্টে ধরা পড়েন নাজমুল ইসলামের হাতে। শেষ ওভারের তৃতীয় বলে সহজ রান-আউট থেকে বেঁচে যান মাভুতা (৬)। পরের বলেই তাকে মুস্তাফিজের তালুবন্দি করেন সাইফউদ্দিন। কিন্তু রিভিউয়ে সেটা নট-আউট বলে প্রমাণিত হয়।

শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৭ উইকেটে ২৪৬ রান তুলে সফরকারীরা। সাইফউদ্দিনের ৩ উইকেটের পাশাপাশি ১টি করে উইকেট নেন মাশরাফি, মুস্তাফিজ, মিরাজ এবং মাহমুদ উল্লাহ।

Check Also

লিটন দাসকে নিয়ে আইপিএল দলগুলো আগ্রহী?

যমুনা নিউজ বিডি: রঙ্গীন পোশাকে দুর্দান্ত খেলে যাচ্ছেন বাংলাদেশের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান লিটন দাস। ডিসেম্বরেই আইপিএলের নিলাম। …

Powered by themekiller.com