Home / সারাদেশ / বগুড়া / বগুড়ায় ছোট ভাইয়ের সংবাদ সম্মেলনের প্রতিবাদে বড় ভাইয়ের পাল্টা সংবাদ সম্মেলন

বগুড়ায় ছোট ভাইয়ের সংবাদ সম্মেলনের প্রতিবাদে বড় ভাইয়ের পাল্টা সংবাদ সম্মেলন

বগুড়ায় ছোট ভাইয়ের সংবাদ সম্মেলনের প্রতিবাদে বড় ভাইয়ের পাল্টা সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১২ টায় বগুড়া প্রেসক্লাবে গাবতলী থানার চক সেকেন্দার গ্রামের মৃত মনি চন্দ্র শীলের বড়– ছেলে নব কুমার সুমন সংবাদ সম্মেলনে তার আপন ছোট ভাই কুসু চন্দ্র শীলের আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করেছেন। লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন আমার ছোট ভাই ও তার কিছু সহযোগীরা মিলে গত ৫/০২/১৯ ইং তারিখে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আমার বিরুদ্ধে সম্পুর্ণ মিথ্যা , ভিত্তিহীন, বানোয়াট, ষড়যন্ত্রমুলক ও উদ্দেশ্যে প্রনোদিত অভিযোগ করা হয়েছে। আমি ও আমার মা এই মিথ্যা অভিযোগের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আমি আপনাদের সকলের অবগতির জন্য জানাচ্ছি যে আমি একজন স্বেচ্ছায় বাধ্যতামুলক (অবঃ) বিজিবির সৈনিক। আমি চাকুরীরত অবস্থায় এবং এখনো আমার মা ও আমি এক পরিবারে, এক সংসারে এবং একই ছাদের নীচে বসবাস করি। আমার ছোট ভাই ও তার সহযোগীরা সমাজে ও মানুষের মনকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার জন্য আমার বিরুদ্ধে মা- বাবাকে নির্যাতনের মিথ্যা কল্পকাহিনী সাজায় যাতে করে আমাকে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন হতে হয়। এছাড়াও আমার বাবা শ্রী মনি চন্দ্র শীলের মৃত্যুর প্রধান কারন ছিল আমার ছোট ভাই ও তার সহযোগী লক্ষন চন্দ্র, রনজিত চন্দ্র, ফটিক চন্দ্র, নির্মল চন্দ্র, বিমল চন্দ্র এবং সুজন চন্দ্ররা। তারা গত ১৭/০৬/১৪ইং তারিখে নার্সারীর ব্যবসা করবে বলে আমার বাবার কাছে জমি এগ্রিমেন্ট রেখে টাকা নেওয়ার কথা বলে আমার বাবার বাড়ি ঘর সহ সকল স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি দলিল করে নেয়। যার কারনে আমার বাবা ২৩/০৬/১৯ইং তারিখে স্ট্রোক করে মৃত্যু বরন করেন। এদিকে আমর স্ত্রী শিল্পী রানী আমার ছোট ভাই ও তার সহযোগীদের নিয়ে কু পরামর্শ করে গাবতলী সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের অনুপস্থিতিতে মেম্বার আনোয়ারুল ইসলাম খানকে দিয়ে একটি মিথ্য শালিশী প্রতিবেদন তৈরি করে। কিন্তু ঐ তারিখে আমি কর্মস্থলে হাজির ছিলাম। এরপর আমার ছোট ভাই ও তার সহযোগীরা আমার স্ত্রী শিল্পী রানীর সাথে যোগসাজস করে গত ৫/০৭/১৮ইং আমাকে ডিভোর্স প্রদান করে এবং আমার বিরুদ্ধে একের পর এক বিভিন্ন হয়রানীমুলক মিথ্যা মামলা ও অভিযোগ দেয়। তারা আমাকে ও আমার মাকে বিভিন্ন সময় ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদান করে। এমতাবস্থায় আমি ও আমার মা নিরাপত্তাহীনতার মধ্যে দিনযাপন করছি। আমি বগুড়ার প্রশাসন, সাংবাদিক সহ সংশ্লিষ্ট উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের প্রতি আকুল আবেদন জানাচ্ছি যে উক্ত ঘটনার সুষ্ঠ ও সঠিক তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত সত্য ঘটনা তুলে ধরে দোষী ব্যক্তির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের জোর দাবি জানাচ্ছি। সেই সাথে আমি ও আমার মার নিরাপত্তার জন্য প্রশাসনের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছি। এই সময় উপস্থিত ছিলেন সুমনের মা শ্রীমতি সাবিত্রী রানী এবং মাসিমা প্রমিলা রানী প্রমুখ সহ অন্যান্য আত্মীয় সজন।

Check Also

ঘটনাস্থলে গিয়ে নুসরাতকে হত্যার বিবরণ দিল মণি

যমুনা নিউজ বিডি: নুসরাতের গায়ে আগুন দেওয়ার ঘটনায় সরাসরি জড়িত তার সহপাঠী কামরুন নাহার মণিকে …

Powered by themekiller.com