Home / রাজনীতি / পাটকল বন্ধের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার দাবি জাসদের

পাটকল বন্ধের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার দাবি জাসদের

যমুনা নিউজ বিডিঃ রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলগুলো বন্ধের সিদ্ধান্তকে আত্মঘাতী হিসেবে বর্ণনা করে তা পুনর্বিবেচনার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ)। একইসঙ্গে দলটি পাটকলগুলোকে এন্টারপ্রাইজ হিসেবে পরিচালনারও প্রস্তাব দিয়েছেন।

রবিবার দলটির সভাপতি হাসানুল হক ইনু ও সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘প্রধানমন্ত্রীর উৎসাহে যখন পাটের জিনোম আবিষ্কৃত হয়েছে, পাটের পুনর্জাগরণের প্রচেষ্টা চলছে, তখন পাটকল বন্ধ করে দেওয়া এবং পাট অর্থনীতিকে পরিত্যক্ত করার আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করা প্রয়োজন।’

পাবলিক-প্রাইভেট পার্টনারশিপের (পিপিপি) উদ্যোগের সমালোচনা করে জাসদের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘আদমজী বন্ধ হবার পর সেখানে আধুনিক পাট কারখানা গড়ে তোলার কথা ছিল। কিন্তু তা হয়নি, আদমজীর জমিতে শিল্প প্লট করে আর কারখানার সবকিছু স্ক্র্যাপ করে জমি আর স্ক্র্যাপের হরিলুট হয়েছে। পিপিপির অধীনে সরকারের পাটকলগুলো চালু করার সদিচ্ছাও আদমজীর মত হরিলুটের খেলায় হারিয়ে যাবে।’

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ‘পাট শিল্পকে লোকসানি খাতে পরিণত করার দায় শ্রমিকের না বরং যখন যারা দায়িত্বে ছিলেন তাদের। অত্যন্ত সুপরিকল্পিত ও ষড়যন্ত্রমূলকভাবে পাট শিল্পকে লোকসানি খাতে পরিণত করা হয়েছে। গত ৪৪ বছরে পাটশিল্পে পুঞ্জীভূত লোকসান ১০ হাজার ৫০০ কোটি টাকা, ব্যাংক ঋণের পরিমাণ ৫০ হাজার কোট টাকা। কিন্তু বিমান বা বিদ্যুতের কুইক রেন্টালসহ বড় লোকসানি খাতে প্রতি বছর যে পরিমাণ লোকসান বা অর্থনীতির রক্তক্ষরণ হচ্ছে তা পাটশিল্পের ৫০ বছরের পুঞ্জিভূত লোকসানের চাইতেও বেশি।’

লোকসানে থাকা দেশের ২৬টি রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলের উৎপাদন বন্ধ ঘোষণা করে প্রায় ২৫ হাজার কর্মীকে গোল্ডেন হ্যান্ডশেকের মাধ্যমে অবসরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। ইতমধ্যে তাদের পাওনা বুঝিয়ে দেওয়ার হবে বলে জানান পাঠ ও বস্ত্র মন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী।

Check Also

‘শ্রদ্ধাঞ্জলি’র ছবির চেয়ে আত্মপ্রচার বড় ১৫ আগস্টের পোস্টার, বিলবোর্ড, ব্যানারে

যমুনা নিউজ বিডিঃ  জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদাতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস …

error: Content is protected !!
%d bloggers like this:

Powered by themekiller.com