Home / সারাদেশ / পঞ্চগড়ে স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে অ্যাডভোকেট আটক

পঞ্চগড়ে স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে অ্যাডভোকেট আটক

যমুনা নিউজ বিডিঃ পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলায় ১০ শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে হাবিব নামে এক অ্যাডভোকেটকে আটক করেছে পুলিশ। এদিকে ওই শিক্ষার্থী পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

গতকাল শুক্রবার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুরে উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের কালিকাপুর গ্রামে এই ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে। পরে স্থানীয়রা তাকে আটক করে থানায় দিলে রাতে ওই শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে আটোয়ারী থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করে। ধর্ষণের অভিযোগে আটক হাবিব আটোয়ারী উপজেলার ধামোর ইউনিয়নের দারখোর গ্রামের মৃত আব্দুল খালেকের ছেলে। পরিবারিরক ও পুলিশ জানায়, ভিকটিমের পরিবার উপজেলার মোলানী গ্রামের বাসিন্দা। ওই শিক্ষার্থীর বাবা হাবিবের কাছ থেকে ৫/৬ মাস আগে কিছু টাকা ধার নেয়। সেই সুবাধে ভিকটিমের পরিবারের পরিচয় তার সাথে। আর হাবিব তাদের বাড়িতে মাঝে মধ্যে টাকা নিতে যাওয়া আশা করতো। শুক্রবার (১১ সেপ্টেম্বর) ভিকটিমসহ তার ভাই দাড়িমনি গ্রামে আত্বীয়ের বাড়িতে যায়।

এদিকে হাবিব সকালে টাকা নিতে গিয়ে তাদের বাড়িতে গিয়ে দেখে যো ভিকটিমের বাবা কাজে গেছে আর ওই কিশোরী তার আত্বীয়ের বাড়িতে। সুযোগ বুঝে দাড়িমনি গ্রামে গিয়ে রাস্তায় ওৎ পেতে থাকে। পরে ওই কিশোরীকে দেখতে পেয়ে তার বাবা আসছে বলে। বাবার সাথে দেখা করানোর কথা বলে কৌশলে কালিকাপুর গ্রামে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে। ভিকটিমের চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে হাবিবকে আটক করে তার পরিবারসহ থানা পুলিশকে জানায়।

তবে এঘটনায় হাবিবের সহযোগী ২নং আসামি সুসিল চন্দ্র দাস ও সুসিলের স্ত্রী ৩নং আসামী শুকুনি দাস পলাতক রয়েছে। আটোয়ারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইজার উদ্দীন জানান, এ ঘটনায় থানায় ধর্ষের অভিযোগে হাবিবকে প্রধান আসামি করে ৩ জনের নামে মামলা দায়ের করা হয়েছে। পলাতক আসামীদের আটকের চেষ্টা চলছে। পঞ্চগড়েরর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুদর্শন কুমার রায় জানান, এ ঘটনায় হাবিবের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। ওই শিক্ষার্থীকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়োছে। তবে আটক হাবিব আইনজিবি কি না তা তদন্তের আগে বলা যাচ্ছে না।

Check Also

বগুড়ায় আইজীবীকে ভুলে স্বীকার করে ছাড়িয়ে নিলেন বারের নেতা

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ বগুড়া জুডিশিয়াল ম্যাজিস্টেট এবং বেঞ্চ সহকারীর সাথে অসদাচরন করায় আদালত পুলিশ এক আইনজীবী …

error: Content is protected !!
%d bloggers like this:

Powered by themekiller.com