Breaking News
Home / সারাদেশ / রংপুর বিভাগ / ডিমলায় ভয়াবহ নদীভাঙ্গন রাস্তাঘাট ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

ডিমলায় ভয়াবহ নদীভাঙ্গন রাস্তাঘাট ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

ডিমলা ( নীলফামারী) প্রতিনিধি:  টানা কয়েক দিনের ভারি বর্ষণে তিস্তা নদীতে সৃষ্ট বন্যার পানি কমলেও ভয়াবহ আকারে দেখা দিয়েছে নদীভাঙ্গন। ভারি বর্ষণের কারণে ডিমলা উপজেলার বিভিন্ন রাস্তাঘাট ও কালভার্টের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে ধান ও সবজিক্ষেতের। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার দোহলপাড়া গ্রামের জামাল উদ্দিনের বাড়ির সামনে তিস্তা নদীর বেরিবাঁধের সিংহভাগ ধসে গেছে। সেখানে এলাকাবাসী স্বেচ্ছাশ্রমে বাঁশের পাইলিং দিয়ে বাঁধটি রক্ষার আপ্রাণ চেষ্টা চালাচ্ছে। সেখানকার বাসিন্দা জামাল উদ্দিন, আব্দুর রহিম বক্স, আব্দুল লতিফ, আব্দুল্লাহ, আবু বক্কর সিদ্দিক এ প্রতিবেদককে জানান, বাঁধটি ভেঙ্গে গেলে খগা খড়িবাড়ী ও টেপা খড়িবাড়ী ইউনিয়নের দুটি গ্রামের প্রায় ১ হাজার পরিবার তাদের ঘরবাড়ি হারাবে। ফসলি জমি নষ্ট হবে।

তিস্তা নদীর গতিপথ পরিবর্তন হয়ে তিস্তার ডানতীর বাঁধে আঘাত হানতে পারে। যে কারণে ডানতীর বাঁধটি হুমকির সম্মুখিন হতে পারে। মুঠোফোনে জানতে চাইলে পাউবোর শাখা কর্মকর্তা (এস ও) মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, বেরিবাঁধটি পাউবোর কর্ম এলাকার বাইরে হওয়ায় তাদের করার কিছু নেই। ইউপি চেয়ারম্যান রবিউল ইসলাম লিথন জানান, এ ব্যাপারে অতি দ্রæত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করবেন। কৃষিতে ক্ষয়ক্ষতি সম্পর্কে জানতে চাইলে উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ সেকেন্দার আলী বলেন, ক্ষয়ক্ষতির পরিমান এখনো নির্ধারন করা সম্ভব হয়নি। তবে নিমজ্জিত ২১০ হেক্টর ফসলি জমির ক্ষয়ক্ষতির পরিমান নিরুপনে কাজ চলছে।

Check Also

বগুড়ায় কোল্ড ষ্টোরেজ ওনার্স এসোসিয়েশনের মতবিনিময় সভা

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ কোল্ড ষ্টোরেজ ওনার্স এসোসিয়েশনের মত বিনিময় সভা মঙ্গলবার বগুড়া শহরের নওদাপাড়ায় হোটেল মম …

error: Content is protected !!
%d bloggers like this:

Powered by themekiller.com